بسم الله الرحمن الرحيم

জামিয়া ইসলামিয়া রওজাতুল উলুম বাউনিয়াবাদ
  • প্রশ্ন: উন্নত জীবন যাপনের আশায় দারুল হরব/মুসলিমদের সাথে যুদ্ধে লিপ্ত এমন কোন রাষ্ট্র/অঞ্চলে মুসলিমদের জন্য বসবাস করার বিধান কি?
  • প্রশ্ন: যুদ্ধের ময়দানে কাফেরদের ঘর বাড়ি ও তাদের উপাসনালয় ধ্বংস করা যাবে কী?
  • প্রশ্ন: শাপলা চত্তরে যারা ইন্তেকাল করেছেন তাদেরকে শহীদ বলা যাবে কী?
  • প্রশ্ন: জিহাদ কখন ফরযে আইন ? কখন ফরযে কিফায়া ?
  • প্রশ্ন: জিহাদের সহিহ সংজ্ঞা কি? এবং তাবলীগে যাওয়া আল্লাহর রাস্তায় জিহাদ বলা কতটুকু সহিহ?
  • প্রশ্ন: কবর খনন করে টাকা নেয়া জায়েয আছে কি না?
  • প্রশ্ন: খাওয়া যায় না এমন প্রাণী শিকার করা জায়েয আছে কী ?
  • প্রশ্ন: বর্তমানে স্কুল-কলেজে চারুকলা পরীক্ষায় বিভিন্ন মানুষ অথবা প্রাণীর ছবি আঁকতে বলা হয়, এমতাবস্থায় উক্ত ছবি আঁকা জায়েয হবে কি না?
  • প্রশ্ন: মুক্তিযোদ্ধা ভাতা এটা একটা সুবিধা, সুতরাং বাংলাদেশের কোন যোদ্ধা যদি মারা যায়, তাহলে কি তা ওয়ারিস সুত্রে তার ছেলে বা নাতি এ সুবিধা ভোগ করতে পারবে?
  • প্রশ্ন: কাফের বাদশাহর পক্ষ থেকে কাযার জিম্মাদারী গ্রহণ করা বৈধ হবে কি না?
  • প্রশ্ন: খালেদ আর বকর দুই ভাই আর যায়েদ হল তাদের মা শরীক ভাই, এখন তাদের মায়ের ১০০ শতাংশ জমি আছে। এ জমি থেকে কি যায়েদ কোন জমি পাবে? পেলে কতটুকু পাবে? উল্লেখ্য কোন বোন এবং অন্য কেউ নেই।
  • প্রশ্ন: হিজড়া সন্তান মিরাস পাবে কি না?
  • প্রশ্ন: বদলী হজকারীকে যদি প্রেরক সুনির্দিষ্টভাবে হজে তামাত্তু করার জন্য পাঠান কিন্তু তিনি হজ্জে ইফরাদ করেন, তাহলে তার হজ আদায় হবে কি না?
  • প্রশ্ন: কোন ব্যক্তির নিকট হজ ফরয হওয়া পরিমাণ সম্পদ রয়েছে কিন্তু তার চাইতে দ্বিগুণ ঋণ রয়েছে, তাহলে তার উপর হজ ফরজ হবে কি না?
  • প্রশ্ন: মৃত ব্যক্তির নামে ওমরা পালন করলে ওমরা কার পক্ষ হতে আদায় হবে?
  • প্রশ্ন: পেনশনের টাকা দিয়ে হজ আদায় করা যাবে কি না?
  • প্রশ্ন: কোন বৃদ্ধলোক (যিনি চলাফরো করতে কষ্ট হয় ) যদি ধনী হয় তাহলে কি তার উপর হজ ফরয হবে?
  • প্রশ্ন: শরয়ী দন্ডবিধি কে বাস্তবায়ন করবে? বিচারক না মুফতি?
  • প্রশ্ন: অনেক মুসল্লী ভাইদেরকে দেখা যায়, জুতা পায়ে রেখে জানাযার নামাজ আদায় করে। জানার বিষয় হলো; এই ভাবে নামাজ আদায় করার হুকুম কি?
  • প্রশ্ন: রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের ভাষা ছিল আরবী, তাই তিনি আরবীতে খুতবা দিতেন,জানার বিষয় হলো, আমাদের মাতৃভাষায় খুতবা দেওয়া জায়েয হবে কি না? আর যদি কেউ দিয়ে ফেলে তাহলে জুমার নামায সহিহ হবে কি না?
  • প্রশ্ন: এক ব্যক্তি জানাযার নামাযে আট তাকবীর বলে শেষ করল, এখন জানার বিষয় হলো; যদি ইমাম সাহেব চার তাকবীরের বেশি তাকবীর বলে তখন মুক্তাদিরা কী করবে? এবং উক্ত নামাযের হুকুম কী?
  • প্রশ্ন: আমরা জানি জুমা বা ঈদের নামাযের খুতবা শুনা ওয়াজিব, কথা বলা হারাম। জানার বিষয় হলো ইমাম সাহেব যদি খুতবাতে কোন ভুল করে ফেলেন, তাহলে উপস্থিত মুসল্লীরা লোকমা দিতে পারবে কি না?
  • প্রশ্ন: অধিকাংশ মসজিদে জুমআর খুতবার পূর্বে বয়ান হয়ে থাকে, জানার বিষয় হলো যে, এই বয়ান জায়েয আছে কি না? উক্ত বয়ান চলাকালীন সময়ে নামাজ পড়া যাবে কি না?
  • প্রশ্ন: কেউ যদি বলে বর্তমানে কোন যুদ্ধ – জিহাদ নেই! অথচ আমরা জানি জিহাদ কিয়ামত পর্যন্ত চলতে থাকবে, এমন ব্যক্তির কি ঈমান ভেঙ্গে যাবে?
  • প্রশ্ন: আমার জানার বিষয় হলো, যে ব্যক্তি নামাজ পড়ে, কোরআন পড়ে, হজ্জ করে আবার হারাম কাজের বৈধতা দেয়, তার ব্যাপারে শরীয়ত কি বলে?
  • প্রশ্ন: শরয়ী দৃষ্টিতে রাশির বিধান কি?
  • ঈমান আকাইদ
  • প্রশ্ন: উন্নত জীবন যাপনের আশায় দারুল হরব/মুসলিমদের সাথে যুদ্ধে লিপ্ত এমন কোন রাষ্ট্র/অঞ্চলে মুসলিমদের জন্য বসবাস করার বিধান কি?
  • মাজহাব বিষয়ে শেখ মুজাফফর বিন মুহসিনের বিভ্রান্তিমুলক বক্তব্য খন্ডন part-1

    আলোচকবৃন্দ:- ১) মুফতি শামছুদ্দোহা আশরাফী, খতিব:-সাইন্সল্যাব জামে মসজিদ ধানমন্ডি। ২) মুফতি জোনাইদ কাসেমী, খতিব:- নবাবগন্জ বড় মসজিদ,লালবাগ। ৩) মুফতি মানসুর আহমাদ, খতিব:- মেঘনাগ্রুপ কেন্দ্রীয় জামে মসজিদ। ব্যবস্থাপনায়: আহলে সুন্নাত ওয়াল জামাআত ইসলামিক দাওয়াহ সেন্টার। সহযোগিতায়:- জামিয়া ইসলামিয়া রওজাতুল উলুম বাউনিয়াবাদ, মিরপুর।

    মাজহাব নিয়ে শেখ মুজাফফর বিন মুহসিনের বিভ্রান্তিমুলক বক্তব্য(৪ইমাম মানার ভবিষ্যতবাণী কই) খন্ডন part-২

    আলোচকবৃন্দ:- ১) মুফতি শামছুদ্দোহা আশরাফী, খতিব:-সাইন্সল্যাব জামে মসজিদ ধানমন্ডি। ২) মুফতি জোনাইদ কাসেমী, খতিব:- নবাবগন্জ বড় মসজিদ,লালবাগ। ৩) মুফতি মানসুর আহমাদ, খতিব:- মেঘনাগ্রুপ কেন্দ্রীয় জামে মসজিদ। ব্যবস্থাপনায়: আহলে সুন্নাত ওয়াল জামাআত ইসলামিক দাওয়াহ সেন্টার। সহযোগিতায়:- জামিয়া ইসলামিয়া রওজাতুল উলুম বাউনিয়াবাদ, মিরপুর।

    মাজহাব বিষয়ে শেখ মুজাফফর বিন মুহসিনের বিভ্রান্তিমুলক বক্তব্য(৪ মাজহাব ৪ ফরজ কোনটা মনব) খন্ডন part-3

    আলোচকবৃন্দ:- ১) মুফতি শামছুদ্দোহা আশরাফী, খতিব:-সাইন্সল্যাব জামে মসজিদ ধানমন্ডি। ২) মুফতি জোনাইদ কাসেমী, খতিব:- নবাবগন্জ বড় মসজিদ,লালবাগ। ৩) মুফতি মানসুর আহমাদ, খতিব:- মেঘনাগ্রুপ কেন্দ্রীয় জামে মসজিদ। ব্যবস্থাপনায়: আহলে সুন্নাত ওয়াল জামাআত ইসলামিক দাওয়াহ সেন্টার। সহযোগিতায়:- জামিয়া ইসলামিয়া রওজাতুল উলুম বাউনিয়াবাদ, মিরপুর।